সমগ্র দক্ষিন এশিয়া জুড়েই আগ্রাসন সন্ত্রাসবাদের



দক্ষিন এশিয়ার বিভিন্ন দেশ যে ভাবে আগ্রাসী মৌলবাদ ও চরমপন্থার জঙ্গী সংগঠনগুলো যে ভাবে সক্রিয় হয়েছে তাতে শুধু ভারত নয় অগামী দিনে সমগ্র এশিয়াতেই এদের দাপটে এক অগ্নিগর্ভ পরিস্থিতি তৈরি হতে পারে |দক্ষিন এশিয়ায় আলকায়দা ,তালিবান মার্কা জঙ্গিবাদের বিচরন ভূমি হলো পাকিস্তান ও আফগানিস্তান |

অন্যদিকে মায়ানমারে নানভাবে সংঘাত বাড়ছে |সংঘর্ষের পরিণতিতে প্রায় 6 লক্ষ রোহিঙ্গা মুসলিমকে মায়ানমারে ছেড়ে বাংলাদেশ ও ভরতে আশ্রয় নিতে হয়েছে |রোহিঙ্গা মুসলিম সমস্যা নিয়ে নতুন উত্তেজক পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে |

পর্যবেক্ষক মহল মনে করেন , শ্রীলঙ্কা ,নেপাল আন্তর্জাতিক জঙ্গী সংগঠনগুলি নিজেদের ক্যাম্প তৈরি করার চেষ্টায় সক্রিয় |তবে ভয়াবহ পরিস্থিতি বাংলাদেশে | হাসিনার নেতৃত্বে স্বাধীনতাপন্থী বাংলাদেশীরা পাকিস্তানের সমর্থনপুষ্ট আর এস আইয়ের সক্রিয় মদতে তৈরি জঙ্গী সংগঠন এর বিরুদ্ধে চূড়ান্ত লড়াইয়ে নেমেছেন |আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে কেন্দ্র করে বাংলাদেশে কি পরিস্হিতি হয় সেদিকে তাকিয়ে রাজনৈতিক মহল .

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও গ্রেট ব্রিটেন দুই দেশেই নিষিদ্ধ জামাত - উদ - দাওয়া |তালিবানদের সঙ্গে পাকিস্তানি সরকারের আলোচনায় না বসার কারন হিসেবেও ভারত ও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রকে দায়ী করেছে মুসলিম জঙ্গি নেতা হাফিজ সয়ীদ |তিনি বলেন ভারত ও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র চায় না কোন আলোচনা হোক |২০০৮ সালে মুম্বই হামলার জন্য হাফিজকে দায়ী করে ভারত |তার গ্রেপ্তারের জন্য ৩ কোটি টাকা বাজি রেখেছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র |

দক্ষিন এশিয়ার বিভিন্ন দেশে পাকিস্তানী গোয়েন্দা চক্র আইএসআইয়ের মদতে জঙ্গীদের নানা সশস্ত্র মামলায় যুক্ত একাধিক মৌলবাদী সংগঠন ভারতে সশস্ত্র ডন দাউদ ইব্রাহিম পাকিস্থানের মাটিতে বসেই ভারত বিরোধী কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছে |

আন্তর্জাতিক মহল মনে করছে ,আফগানিস্তান থেকে মার্কিন ও ন্যাটো বাহিনী সরে এলেই তালিবানরা গুপ্তচর চক্র আই এস আইয়ের সাহায্যে পাকিস্তান দখলে সক্রিয় হবে |এর ফলে ভারত ও দক্ষিন এশিয়ায় নতুন করে জঙ্গীবাদের আগ্রাসী ভূমিকার সম্ভবনা তীব্রতর হয়ে উঠতে পারে |
Share on Google Plus Share on Whatsapp



0 comments:

Post a comment