অনুব্রত গড়ে আজও অসম্ভব পদ্ম চাষ

স্নেহাশিষ মুখার্জি : পদ্ম চাষের নতুন লাঙ্গল বাকি লাঙ্গল গুলোর সঙ্গে অনুব্রত ভূমিতে পদ্ম চাষ করতে গেলেও  বৃহঃস্পতিবার রাজনগর ব্লকের তাঁতীপাড়ায় ৪০ - ৫০ হাজার মানুষের উপস্থিতি আরও একবার পদ্ম শিবিরের চোখে আঙুল দিয়ে প্রমান করে দিল  অনুব্রত গড় ঘাস  ফুল ফোটানোর জন্যই শুধু উর্বর | এদিনের একই মঞ্চে দুই বর্ষীয়ান নেতার উপস্থিতি বিভিন্ন রাজনৈতিক বিরোধি দলগুলির নেতৃত্বের কপালে ভাঁজ ফেলেছে বলেই মনে করছেন  পর্যবেক্ষক মহলের একাংশ | 

এই সরকারের পাশে আপনারা কেন থাকবেন এই প্রসঙ্গে বলতে গিয়ে অনুব্রত মণ্ডল তৃণমুল সরকারের উন্নয়নমূলক প্রকল্পগুলি মানুষের কাছে তুলে ধরেন | তিঁনি মঞ্চ থেকে বলেন 2011 সালে রাজ্যে পালাবদল হয়ে  শাসনভার গ্রহণ করে  মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নেতৃত্বাধীন বিভিন্ন প্রকল্পের মাধ্যমে মাত্র ৬ বছরেই উন্নয়নের এক নতুন জোয়ার এনেছে মা মাটি মানুষের সরকার | তাঁর সবচেয়ে বড় প্রমান কন্যাশ্রী , যুবশ্রী , সবুজসাথী , ন্যায্য মূল্যের ওষুধের দোকান , আনন্দধারা , গতিধারা , সমব্যাথী , শিশুসাথী , সেফ ড্রাইভ সেফ লাইফের মত প্রকল্পগুলি | এরপর নাম না করে তিঁনি মুকুল রায় প্রসঙ্গে বলেন "মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় মীরজাফরকে চিনতে ভুল করেছিলেন | যাঁর পঞ্চায়েত ভোট জেতার যোগ্যতা নেই তাঁকে রেলমন্ত্রী করেছিলেন | আমি প্রতিটা আসনেই বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়  জিতবো ,আসবেন তো আটকাতে |

 এরপর তিঁনি মুকুল রায়কে  বিদ্রুপ করে বলেন শুনছি আপনি নাকি এবার লাভপুরে আসবেন , ওখানে অনেক পাগলা কুকুর আছে , কামড়ালে দোষ দেবেন না" রাজ্যে পঞ্চায়েত ভোট যতই এগিয়ে আসছে বীরভূমের রাজনৈতিক প্রেক্ষাপট ততই উত্তপ্ত হয়ে উঠছে বলে মনে করছেন রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞরা | পরিবহণ মন্ত্রীই  শুভেন্দু অধিকারী বিজেপি নেতাদের পরিযায়ী পাখিদের সঙ্গে তুলনা করেছেন | নাম না করে মুকুলকে  তিঁনি বলেন তৃণমূল যাদের ডাস্টবিনে ফেলে দিচ্ছে  বিজেপি তাঁদের লুফে নিচ্ছে  | এদিনের জনসভায় তিঁনি রাজনগর থেকে কলকাতা যাবার জন্য একটি সরকারি বাস চালু করার প্রতিশ্রুতিও দিয়ে আসেন তাঁতিপাড়ায় |
উক্ত জনসভায় উপস্থিত ছিলেন মৎস মন্ত্রী  চন্দ্রনাথ সিনহা , কৃষি মন্ত্রী  আশিস বন্দ্যোপাধ্যায় , সভাধিপতি বিকাশ রায়চৌধুরী প্রমুখ ব্যাক্তিত্ববর্গ
তবে বীরভূমের অনুব্রতর উর্বর জমিতে পদ্ম চাষ  যে একেবারেই অসম্ভব  তা আবার প্রমান করে দিল এই জনসভার জনসমুদ্র |
Share on Google Plus Share on Whatsapp



0 comments:

Post a comment